You dont have javascript enabled! Please download Google Chrome!

স্বপ্ন পূরণের সুযোগ পেয়েও ভর্তি অনিশ্চিত

শেরপুরের ঝিনাইগাতী উপজেলার অদম্য মেধাবী শিক্ষার্থী মো. আল আমিন (১৬)। তার স্বপ্ন ছিল বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হবার। সেই স্বপ্ন পূরণের সুযোগও পেয়েছেন তিনি। আল আমিনের বাবা মো. হাবিবুর রহমান দিন মজুরী করে সংসার চালান। তাদের বাড়ী উপজেলার মালিঝিকান্দা ইউনিয়নের কাঠাঁলতলী গ্রামে।

তিনি বিজ্ঞান বিভাগ থেকে ২০১৪ সালে এসএসসি পরীক্ষায় জিপিএ ৫ ও ২০১৬ সালে এইচএসসি পরীক্ষায় জিপিএ ৪.৬৭ পেয়ে উত্তীর্ণ হয়েছেন। তিনি এ বছর গোপালগঞ্জ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ‘এইচ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষায় মেধা তালিকায় স্থান পেয়েছেন। ভর্তির শেষ সময় ১৮ ডিসেম্বর। কিন্তু এখনো ভর্তির টাকা যোগাড় না হওয়ায় তাঁর স্বপ্ন পূরণ অনিশ্চিত।

আল আমিন বলেন, আমার স্বপ্ন ছিল বিশ্ববিদ্যালয়ে লেখাপড়া করবো। স্বপ্ন পূরণের সুযোগও পেয়েছি। স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ডপস’র সহযোগীতায় এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষায় অংশ গ্রহণ করতে পেরেছিলাম। এখন আমার বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হতে প্রায় ২০ হাজার টাকার প্রয়োজন। এখন পর্যন্ত টাকার ব্যবস্থা না হওয়ায় আমার স্বপ্ন পূরণ অনিশ্চিত হয়ে পরেছে।

আল আমিনের বাবা বলেন, তার জমি বলতে শুধু বসতভিটেই রয়েছে। দিন মজুরী করে কোন রকমে সংসার চলে তাদের। এর মধ্যে ছেলের বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি ও পড়ালেখার ব্যয় বহন করা তার পক্ষে সম্ভব নয়।

 

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের

error: Alert: কপি হবেনা যে !!