শেরপুরে পুলিশের পিটুনিতে অটোচালক আহত

পুলিশকে ঘুষখোর বলায় শেরপুরে ব্যাটারি চালিত এক অটোরিক্সা চালককে পিটিয়েছে ট্রাফিক পুলিশ। শুধু তাই নয় পিটিয়ে আহত করে জেলা হাসপাতালে চিকিৎসাও দেওয়া হয়েছে তাকে। ঘটনাটি ঘটেছে ১৮ ফেব্রুয়ারী শনিবার দুপুর ১ টার দিকে শহরের নিউ মার্কেট চত্বরে।
প্রত্যক্ষদর্শিরা জানায়,  বেলা ১ টার দিকে শহরের নিউ মার্কেট চত্বরে শফিক নামে ট্রাফিক পুলিশের এক কনস্টেবল ফারুক হোসেন নামে এক অটোচালক রাস্তায় মাঝে আটো থামিয়ে বস্তা উঠানোর কারণে ধমকানো শুরু করে। এসময় অটোচালক বলে উঠেন ‘আমরা তো এ জন্য পুলিশকে টাকা দেই।’ এ কথা শুনেই তেলে বেগুনে জ্বলে উঠে ওই কনস্টেবল অটোচলককে বেধম পেটাতে থাকে। এক পর্যায়ে ওই অটো’র সামনে ও পেছনের কাঁচ ভেঙে ফেলে। পরে রক্তাক্ত ও আহত অটোচালককে অপর এক কনস্টেবল দিয়ে জেলা হাসপাতালে পাঠানো হয়। সেখানে তাকে চিকিৎসা দিয়ে নিয়ে যাওয়া হয় বলে জানান হাসপাতালের জরুরী বিভাগের কর্মরত কর্মচারীরা।
হাসপাতাল সূত্রে জানা যায়, ফারুক হোসেন সদর উপজেলার পাকুরিয়া খামার পাড়া গ্রামের আব্দুল কাদিরের ছেলে।
এ ব্যাপারে অভিযুক্ত ট্রাফিক পুলিশের কনস্টেবল শফিক সাংবাদিকদের জানান, ওই অটোচালক ট্রাফিক আইন না মেনে পুলিশকে ঘুষখোর বলে এবং আমার লাঠি নিয়ে টানা টানি করায় তাকে আমি পিটিয়েছি।
এ ব্যাপারে ট্রাফিক ইন্সপেক্টর তারিকুল ইসলাম সাংবাদিকদের জানান, যত অন্যায়ই করুক অটোচালককে পেটানো বা তার অটো ভাংচুর করা ঠিক হয়নি। তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়ার সুযোগ ছিল। বিষয়টি আমি দেখবো।
 

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের