শেরপুরে ছাত্রীনিবাস থেকে স্কুল ছাত্রীর মরদেহ উদ্ধার ।। পরিবারের দাবী হত্যাকান্ড

শেরপুর জেলা শহরের সজবরখিলা এলাকার ফৌজিয়া মতিন পাবলিক স্কুলের ছাত্রীনিবাস থেকে আনুসকা আয়াত বন্ধন নামে নবম শ্রেনীর এক ছাত্রীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

এদিকে নিহতের স্বজনদের দাবী বন্ধনকে হত্যা করা হয়েছে। অন্যদিকে পুলিশ বলছে বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে। বন্ধন শ্রীবরদী উপজেলার পূর্বছনকান্দা গ্রামের ওমান প্রবাসী আনোয়ার জাহিদ বাবুল মৃর্ধার মেয়ে ।

জানা গেছে,বন্ধন শহরের ফৌজিয়া মতিন পাবলিক স্কুলের ছাত্রীনিবাসে থেকে নবম শ্রেনীতে পড়াশুনা করছিল। সকালে বন্ধনকে রুমে উরণা পেচিয়ে ঝুলে থাকতে দেখে এক ছাত্রী চিৎকার দিলে স্কুল কৃর্তপ তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে প্রেরণ করে । পরে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষনা করে ।

তবে এই ঘটনাটিকে আত্নহত্যা বলে মানতে নারাজ পরিবার । তাদের দাবী কেউ হয়ত তাকে হত্যা করে মরদেহ ঝুলিয়ে রেখেছে।

এব্যাপারে নিহতের ফুপু ও শ্রীবরদী উপজেলা আনসার ভিডিপির সহকারী অফিসার রওশন আরা বলেন, অামার ভাতিজির সাথে গতকালও তার বাবা দেখা করেছে ।  আমি মনে করি অামার ভাতিজিকে কেউ হত্যা করে ঝুলিয়ে রেখেছে ।  আমি এর সুষ্ঠ বিচার চাই ।

এব্যাপারে অধিক তদন্ত সাপেক্ষে কথা বলা উচিত বলে মনে করেন শেরপুরের পুলিশ সুপার আশরাফুল আজীম ।  তিনি সাংবাদিকদের  বলেন আমরা  বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে খতিয়ে দেখছি।  সব কিছু শেষে আমরা বিস্তারিত আপনাদের জানাতে পারবো ।

শর্টলিংকঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।