লছমনপুর ইউপি চেয়ারম্যানের সচেতনতা প্রচার অভিযান ও মাস্ক বিতরণ

করোনাভাইরাস বর্তমান সময়ের সবচেয়ে ভয়ানক সমস্যা। এই ভাইরাসকে কেন্দ্র করে মাস্ক সংকটে গোটা বাংলাদেশ। চাহিদার তুলনায় প্রয়োজনীয় মাস্ক না থাকায় বাজারে অতিরিক্ত মূল্যে মাস্ক বিক্রি হচ্ছে ৷ ফলে চাহিদা থাকা সত্বেও, সাধারণ মানুষের ক্রয় ক্ষমতার বাইরে চলে যাচ্ছে। এখন পর্যন্ত কোন প্রতিষেধক আবিষ্কার না হওয়াতে সমস্যার মাত্রা বেড়ে দাড়িয়েছে কয়েকগুন।ঝরে পড়ছে অজস্র সম্ভাবনাময় প্রাণ।

বাজারের মাস্ক সংকটের কথা মাথায় রেখে সাধারণ মানুষের জন্য এগিয়ে এসেছেন লছমনপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো.সেলিম মিয়া ।

তিনি পায়ে হেঁটে ইউনিয়নের বিভিন্ন স্থানে যেয়ে প্রায় ৫শ মাস্ক নিজ হাতে পরিয়ে দেন এবং জনসাধারনের মাঝে সতর্কতা সৃষ্টি করেন।

ইউপি চেয়ারম্যান জানান – মাস্ক সংকটের কারণে উচ্চ মূল্যে জনসাধারণকে মাস্ক কিনতে হচ্ছে। তাদের হাতে নেই পর্যাপ্ত হ্যান্ড স্যানেটাইজারও। ফলে প্রয়োজন হওয়া সত্বেও সাধারণ মানুষ মাস্ক কিনতে পারছেন না। সাধারণ মানুষের এসব কথা মাথায় রেখেই এই প্রচেষ্টা। মাস্ক বিতরণ বড় কথা না আমি ঘুরে ঘুরে মানুষকে সচেতন করার চেষ্ঠা করছি । সবাইকে প্রয়োজন ছাড়া বাইরে বের হতে মানা করছি ।

শর্টলিংকঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।