‘বুদ্ধিজীবী হত্যাকারীদের দেশে ফিরিয়ে আনার চেষ্টা চলছে’

বুদ্ধিজীবী হত্যাকারীদের দেশে ফিরিয়ে আনার চেষ্টা চলছে বলে জানিয়েছেন মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক। আজ শনিবার শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবসে রায়েরবাজার বধ্যভূমিতে জাতির সূর্য সন্তানদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে তিনি এ কথা বলেন।

বুদ্ধিজীবী হত্যার হোতা মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি চৌধুরী মাঈনুদ্দিন ও আশরাফুজ্জামান খানকে দেশে ফিরিয়ে আনার বিষয়ে ‍মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী বলেন, ‘আইনের কারণে তাদের ফেরত নিয়ে আসা যাচ্ছে না। তাদের দেশে ফিরিয়ে এনে রায় কার্যকর করার চেষ্টা চলছে।’

একাত্তরের মানবতাবিরোধী অপরাধে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত জামায়াত নেতা আবদুল কাদের মোল্লাকে ‘শহীদ’ উল্লেখ করে একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে দৈনিক সংগ্রাম।

এ বিষয়ে মন্ত্রী বলেন, ‘দৈনিক সংগ্রাম আবদুল কাদের মোল্লাকে শহীদ লেখার মাধ্যমে ঘৃণ্য কাজ করেছে। একাত্তরে তারা যে ধৃষ্টতা দেখিয়েছিল তা অব্যাহত রেখেছে। রাষ্ট্রীয়ভাবে এ ঘটনার নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই। একইসঙ্গে দৈনিক সংগ্রামের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

আগামী বছর শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবসের আগেই বুদ্ধিজীবীদের তালিকা প্রকাশ করা হবে জানিয়ে আ ক ম মোজাম্মেল হক বলেন, ‘ইতিমধ্যে আমাদের হাতে ৩০০ জনের তালিকা রয়েছে। যা যাচাই-বাছাই শেষ করে আগামী বছর তালিকা প্রকাশ করা হবে।’

এদিকে কাদের মোল্লাকে ‘শহীদ’ উল্লেখ করে প্রতিবেদন প্রকাশ করায় দৈনিক সংগ্রাম পত্রিকার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া উচিত বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

প্রসঙ্গত, মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে ফাঁসি কার্যকর হওয়া জামায়াত নেতা আবদুল কাদের মোল্লাকে ‘শহীদ’ উল্লেখ করে প্রতিবেদন প্রকাশ করায় মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের একদল নেতাকর্মী গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যায় দৈনিক সংগ্রাম কার্যালয় ঘেরাও কর্মসূচি পালন করেন। এ সময় একদল যুবক রাজধানীর মগবাজারে পত্রিকাটির কার্যালয়ে ঢুকে বিভিন্ন কক্ষ ভাঙচুর করেন এবং তালা লাগিয়ে দেন।

হামলাকারীরা পত্রিকাটির সম্পাদক আবুল আসাদকে ধরে নিয়ে যাওয়ার সময় পুলিশ তাকে হেফাজতে নেয়। এই প্রতিবেদন প্রকাশের জন্য ক্ষমা চান আবুল আসাদ।

শর্টলিংকঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।