প্রেমের টানে শেরপুরে রাশিয়ান কন্যা । অতপর বিয়ে

পাত্রী রাশিয়ান কন্যা সিভেত লেনার। আর ছেলে শেরপুরের নালিতাবাড়ীর ধীরেন্দ্র কান্ত সরকারের ছেলে ধর্মকান্ত সরকার। তাদের বিয়ের আয়োজন হলো শেরপুর শহরের গোপাল জিউর মন্দির প্রাঙ্গণে। শুক্রবার রাত ৯টায় তারা পরস্পরের গলায় মালা পরিয়ে বসেছেন বিয়ের পিঁড়িতে। এই বিয়েতে দাওয়াত করা করা হয়েছে চার শতাধিক অতিথিকে। তাদের খাবারের তালিকায় রয়েছে পুষ্প অন্ন, ভুনা খিচুরি, সয়াবিনের রসাসহ ১৪ প্রকারের নিরামিষ।

ধর্মকান্ত সরকার শেরপুর টাইমসকে জানান, ১৯৯৭ সালে এইচএসসি পাসের পর উচ্চতর পড়াশোনার জন্য তিনি চলে যান রাশিয়ায়। ভর্তি হন মস্কোর আছরাখান টেকনিক্যাল ইউনিভার্সিটিতে। সেখানে তেল, গ্যাস ও পেট্রোল বিষয়ে মাস্টার ডিগ্রি লাভের পর শুরু করেন ব্যবসা। এক সময় যাওয়া-আসা শুরু হয় মস্কোর ইন্টারন্যাশনাল সোসাইটি ফর কৃষ্ণা কন্সিয়াসনেস বা ইসকনে। সেখানেই পরিচয় হয় রাশিয়ান কন্যা সিভেত লেনার সাথে। পরে দীর্ঘদিন দুজনের মধ্যে চলে ইমেইলে আলাপচারিতা। গত বছরের সেপ্টেম্বরে তিনি দেশে চলে আসেন। দেশে চলে এলেও দুজনের মধ্যে অব্যাহত থাকে  যোগাযোগ। এর সূত্র ধরেই এক মাস আগে বাংলাদেশে আসেন সিভেত লেনা।

শেরপুর ইসকনের সেবায়েত অপূর্ব জগন্নাথ দাশ ব্রহ্মচারী শেরপুর টাইমসকে জানান, শুক্রবার রাত ৯টায় গোপাল জিউর মন্দির প্রাঙ্গণে ধর্মকান্ত সরকার ও সিভেত লেনার বিয়ে কাজ সম্পন্ন হয়। তাদের ভালোবাসার পরিণতি আজ বিয়েতে রূপ নিয়েছে।

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের