You dont have javascript enabled! Please download Google Chrome!

নালিতাবাড়ীতে শিয়ালের কামড়ে আহত ১২

শেরপুরের নালিতাবাড়ীতে গত বৃহস্পতিবার (৪ অক্টোবর) থেকে গতকাল শনিবার (৭ অক্টোবর) রাত পর্যন্ত তিন দিনে ১২ জনকে শিয়ালে কামড়ে আহত করেছে। উপজেলার সীমান্তবর্তী দাওধারা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

আহতরা হলেন- দাওধারা গ্রামের আজাহার আলী (৩০), মামুন মিয়া (৩০), সুমন মিয়া (২৬), খোরশেদ আলী (২৮), মীম খাতুন (৮), রহিমা বেগম (২৫), আমেনা (৫৫), আজিজুল হক (২৫), নুরুল আমীন (৩৫), সুফিয়া বেগম (২২), দাওয়াকুড়া গ্রামের গাফ্ফার আলী (২২) ও ডালুকোনা গ্রামের রুহুল আমীন (৩৮)। এছাড়াও দাওধারা গ্রামের আজিজুলের ১টি গাভী, নুরুল আমীনের ১টি গাভী, মন্টু কোচের ১টি বকন, জয়নবের ১টি ষাড় ও আনিছ মিয়ার একটি বকন কামড়ে আহত করেছে। এ ঘটনায় ওই এলাকায় শিয়াল আতংক বিরাজ করছে।

স্থানীয়রা জানান, সন্ধ্যা হলেই ৮/১০টি করে শিয়াল ৫/৬টি দলে বিভক্ত হয়ে রাস্তা ও আশপাশের বাড়িতে হামলা করে ও কামড় দেয়। শিয়ালের কামড় থেকে বাঁচার জন্য গ্রামবাসী রাত জেগে দল বেধে পাহাড়া দিচ্ছেন বলে জানান গ্রামবাসী।
তারা আরো জানান, শিয়ালগুলো শুধু রাতেই নয়, পড়ন্ত বিকেল থেকেই সীমান্ত সড়ক ও পাশের দাওধারা, কাটাবাড়ি এবং ডালুকোনা গ্রামে ঘোরাফেরা করছে। সুযোগ পেলেই আক্রমন করছে। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভ্যাকসিন না থাকায় আহত অনেকে শেরপুর সদর হাসপাতাল থেকে ভ্যাকসিন নিয়েছে।

এ ব্যাপারে নালিতাবাড়ী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আরিফুর রহমান বলেন, ঘটনাটি আমি শুনেছি। ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে আহতদের জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবো। তবে নালিতাবাড়ী হাসপাতালে ভ্যাকসিন সরবরাহ না থাকায় আহতদের শেরপুর সদর হাসপাতাল থেকে ভ্যাকসিন গ্রহণের পরামর্শ দেন তিনি।

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের

error: Alert: কপি হবেনা যে !!