নালিতাবাড়ীতে ফাঁসিতে ঝুলে কিশোরের আত্মহত্যা

শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার শেকেরকুড়া গ্রামের রাসেল মিয়া (১৬) নামের এক কিশোর ফাঁসিতে ঝুলে আত্মহত্যা করেছে। ২১ জুলাই শনিবার বিকেলে নিহতের নিজ ঘরে এ ঘটনা ঘটে। নিহত রাসেল ওই গ্রামের মৃত হযরত আলীর ছেলে ও এবারের এসএসসি পরীক্ষায় অংশ গ্রহন করে অকৃতকার্য হয়।

পারিবারিক সুত্রে জানা যায়, শনিবার বিকেল ৩টার দিকে রাসেলের নানার বাড়ি হাতিপাগার গ্রাম থেকে তার নিজ বাড়িতে এসে দাদীর কাছে ঘরের দরজা খুলার জন্য চাবি চায়। তার মা বাড়িতে না থাকায় একাকী ওই ঘরের আড়ার (ধন্না) সাথে মনের ক্ষোভে ফাঁসিতে ঝুলে আত্মহত্যা করে। এদিকে সন্ধ্যা ঘণিয়ে আসায় তার দাদি ওই ঘরে হাঁস-মুরগি উঠাতে যায়। দরজা বন্ধ দেখে অপর নাতি ছাইফুলকে ডাকেন। ছাইফুল এসে লাথি দিয়ে দরজা খুলে দেখেন রাসেল ফাঁসিতে ঝুলে মারা গেছে। এসময় তাদের ডাক-চিৎকারে বাড়ির অন্যান্যরা ছুটে আসেন। পরে খবর পেয়ে নালিতাবাড়ী থানা পুলিশ গিয়ে ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেন। রাসেল এবারের এসএসসি পরীক্ষায় অংশ গ্রহন করে অকৃতকার্য হয়। তবে কি কারণে আত্মহত্যা করেছে সে এখনো জানা যায়নি।

এ ব্যাপারে নালিতাবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) একেএম ফসিহুর রহমান বলেন, ঘটনা শুনেছি এবং ঘটনাস্থলে অফিসার পাঠিয়েছি।

উল্লেখ্য, গত দীর্ঘ এক যুগ আগে রাসেলের পিতা হযরত আলী ব্রেইনস্টোক করে মারা যান। এক ভাই এক বোনের মধ্যে বোনটিও প্রায় ৫ বছর আগে বিষপান করে আত্মহত্যা করে।

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের