নালিতাবাড়ীতে পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা না থাকায় ফসলের ব্যাপক ক্ষতি

শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার নন্নী বাইগরপাড়া বন্দধারা গ্রামের অর্ধশতাধিক কৃষকের বোরো ফসলের পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা না থাকায় ফসলের ব্যাপক ক্ষতির অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এলাকাবাসীর অভিযোগের প্রেক্ষিতে সরেজমিনে দেখা গেছে, উপজেলার নন্নীবাজার ঝিনাইগাতী উপজেলায় যাওয়ার সড়কের চৌধুরী বাড়ী সংলগ্ন গাঙ্গিনার উপর সরকারীভাবে নির্মিত বিজ্রের নিচ দিয়ে যুগযুগ ধরে পানি নিষ্কাশন হয়ে আসছে। স¤প্রতি ব্রিজের ভাটির দিকের জমির মালিক স্থানীয় আবুল হোসেন নামে জৈনক ব্যক্তি মাটি ভরাট করে গৃহ নির্মাণ করায় পানি নিষ্কাশন বন্ধ হয়ে যায়। স¤প্রতি অতিবৃষ্টির কারনে উজানের প্রায় দুইশ একর জমির ফসল পানিতে নিমজ্জিত হয়ে পড়ে। এ ব্যাপারে এলাকাবাসী প্রশাসনের বিভিন্ন দপ্তরে প্রতিকার চেয়ে আবেদন করার পর স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ছোট একটি চুঙ্গির ব্যবস্থা করলেও তা পানি নিষ্কাশনে কোন কাজে আসছেনা।

 

ক্ষতির মুখে পড়া কৃষক আমির হোসেন, মাসুদ মিয়া ও সুরুজ আলী জানান, স্থানীয়ভাবে ও প্রশাসনের বিভিন্ন দপ্তরে সমাধানের চেষ্টা করেও কোন কাজ হচ্ছে না। এতে আমরা বোরো আবাদে ব্যাপক ক্ষতির সম্মুখিন হলেও যেন দেখার কেউ নেই।

শেরপুর জেলা পরিষদের সদস্য ও নন্নী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বিল্লাল হোসেন চৌধুরীর কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, বিষয়টি ভুক্তভোগি কৃষকরা আমাকে জানিয়েছেন। সমাধানের জন্য আমি বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও কৃষি কর্মকর্তাকে অবহিত করেছি।

এ ব্যাপারে নালিতাবাড়ী উপজেলা কৃষিকর্মকর্তা শরীফ ইকবাল বলেন, অভিযোগ পেয়েছি বিষয়টি সরেজমিনে পরিদর্শন করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের