খালেদা জিয়াকে রাষ্ট্রপতির কাছে ক্ষমা ভিক্ষার আহবান জানালেন শেরপুরে কৃষিমন্ত্রী

জেল থেকে মুক্তি পেতে রাষ্ট্রপতির কাছে ক্ষমা ভিক্ষার আবেদন করতে খালেদা জিয়ার প্রতি আহবান জানিয়েছেন কৃষিমন্ত্রী বেগম মতিয়া চৌধুরী।
আজ (৩ জুন) রবিবার দুপুরে শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার রূপনারায়নকুড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে ঈদ-উল ফিতরের উপহারসামগ্রী বিতরণী অনুষ্ঠান উপলক্ষে আয়োজিত এক সভায় তিনি এ আহবান রাখেন।

বিএনপি চেয়ারপার্সন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম জিয়াকে উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, আপনারা যদি ছাড়া পেতে চান মুক্তি চান তবে রাষ্ট্রপতির কাছে ক্ষমার আবেদন করবেন, ক্ষমা ভিক্ষা করেন। রাষ্ট্রপতি যদি ক্ষমা করেন তাহলে হবে, না হলে হবে না। কাজেই আমাদের দোষে কোন লাভ নেই। শেখ হাসিনারে দোষ দিয়ে কোন লাভ নেই। চুরি এমন জিনিস, এটা হজম করা খুব কঠিন। আপনি চোর, আপনার ছেলে চোর, গোষ্ঠী শুদ্ধ চুর।

তিনি আরও বলেন, রাজনীতির বিচার নয়, চুরির বিচার হয়েছে। গ্রামের রহিমন-করিমনরা চুরি করলে তার দায়ে সাজা হবে আর আপনি একেবারে বঙ্গের লাট, আপনি চুরি করলে আপনাকে শাস্তি দেওয়া যাবে না?

শেরপুরের জেলা প্রশাসক ড. মল্লিক আনোয়ার হোসেনের সভাপতিত্বে এসময় অন্যান্যের মধ্যে পুলিশ সুপার রফিকুল হাসান গণি, নালিতাবাড়ী উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান একেএম মুখলেছুর রহমান রিপন, নির্বাহী কর্মকর্তা তরফদার সোহেল রহমান, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি জিয়াউল হোসেন মাস্টার, সাধারণ সম্পাদক ফজলুল হকসহ দলীয় নেতৃবৃন্দ এবং প্রশাসনের অন্যান্য কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

এদিন মন্ত্রী উপজেলার ৫টি ইউনিয়নের ৮ম ও ৯ম শ্রেণির মেধাবী প্রথম দশজনের মাঝে মোট ১৬৭টি থ্রিপিস, ১৩৫টি শাড়ি, দশম শ্রেণির মেধাবী প্রথম দশজন করে মোট ১৩৫ জন শিক্ষার্থীর মাঝে ৫শ করে প্রণোদনার অর্থ বিতরণ করেন। এছাড়াও গরীব ও দুঃস্থদের মাঝে ৩ হাজার ৯শ টি শাড়ি, ৮৫০ টি ট্রাউজার-গেঞ্জি সেট, ৫টি শার্ট ও খেজুর বিতরণ করেন।

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের