You dont have javascript enabled! Please download Google Chrome!

আবারো ঝিনাইগাতীতে গৃহবধুর লাশ উদ্ধার : স্বামী আটক

শেরপুরে ঝিনাইগাতী উপজেলার বাঁকাকুড়া গ্রামে স্বামী-শুশুরবাড়ীর নির্যাতনে অতিষ্ঠ অন্ত:স্বত্ত্বা এক গৃহবধুর লাশ গলায় ফাঁস ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ৭ এপ্রিল শনিবার বিকেল তিনটার দিকে পুলিশ স্বামীর বসতঘর থেকে ধর্নার সাথে গলায় রশি দিয়ে ফাঁস লাগানো অবস্থায় লাশটি উদ্ধার করা হয়।

নিহত সোনামনি বেগম (১৯) শ্রীবরদী উপজেলার কাকিলাকুড়া গ্রামের নুরুল হকের মেয়ে। এ ঘটনায় স্বামী ও শুশুরবাড়ীর লোকজন পালিয়ে গেলেও পাশ্ববর্তী শ্রীবরদী উপজেলার ভায়াডাঙ্গা এলাকা থেকে স্থানীয় লোকজনের সহায়তায় পুলিশ স্বামী রাসেল মিয়াকে (২৩) আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে।

ঝিনাইগাতী থানার ওসি বিপ্লব কৃমার বিশ্বাস লাশ উদ্ধারের সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, প্রায় দুই বছরে আগে বিয়ের পর থেকে স্বামী এবং শুশুরবাড়ীর লোকজন ওই গৃহবধুকে নানা কারণে অত্যাচার করতো বলে নিহতের বাবা-মা অভিযোগ করেছেন। প্রাথমিকভাবে ঘটনাটি আত্মহত্যা বলে মনে হয়েছে। লাশের ময়নাতদন্ত করা হবে।

উল্লেখ্য, এর আগে গতকাল শুক্রবার শেরপুরের ঝিনাইগাতীতে মোছা. ফুলবানু (২৮) নামে এক গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে থানা পুলিশ। উপজেলার মরিয়মনগর এলাকায় একটি গাছের সঙ্গে গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় তার লাশ উদ্ধার করা হয়। ফুলবানু উপজেলার ভারুয়া গ্রামের সোহেল মিয়ার স্ত্রী।

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের

error: Alert: কপি হবেনা যে !!