অবিরাম বর্ষণ ও পাহাড়ী ঢলে ঝিনাইগাতীর নিম্নাঞ্চল প্লাবিত

অবিরাম বর্ষণ ও পাহাড়ী ঢলে শেরপুরের ঝিনাইগাতী উপজেলার ৩টি ইউনিয়নের নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে। গত তিন দিনের টানা বর্ষণ ও ভারত থেকে নেমে আসা পাহাড়ী ঢলে মহারশী ও সোমেশ্বরী নদীর পানির স্রোতে তীরবর্তী বাঁধ ভেঙ্গে ঝিনাইগাতী উপজেলার ঝিনাইগাতী সদর, ধানশাইল ও কাংশা ইউনিয়নের ১৫ টি গ্রামের নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে। গ্রামগুলো হলো- দিঘিরপাড়, রামনগর, চতল, আহম্মদনগর, বনকালি, ধানশাইল, কাংশাসহ নিম্নাঞ্চল গ্রামগুলো প্লাবিত হওয়ায় এলাকার রাস্তাঘাট, ছোট ছোট পুল কালভার্ট, কাঁচা-পাকা বাড়িঘরের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। এছাড়া ভারী বর্ষণে নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়ে ঝিনাইগাতী বাজার ও বাড়ী ঘরে প্রবেশ করেছে। এতে চরম ভোগান্তিতে পড়েছে ব্যবসায়ী ও স্থানীয়রা।

ঝিনাইগাতী বাজারের বাসিন্দা আতিকুর রহমান বলেন, গত রাত থেকে দুর্ভোগে পড়েছি। বাসার ভেতরে পানি ঢুকে পড়েছে। রান্নার সমস্যা হয়েছে।

আহম্মদনগর এলাকার বাসিন্দা আজগর আলী, রবিন মিয়া, শেখ ফরিদসহ অনেকে জানান, গত তিন ধরে বৃষ্টিতে আহম্মনগর এলাকায় কয়েকটি বাড়িতে পানি ঢুকেছে। এতে আমরা বিপদে পড়েছে। চুলায় পানি থাকায় রান্না করা যাচ্ছে।

ঝিনাইগাতী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রুবেল মাহমুদ জানান, নিম্নাঞ্চল প্লাবিতগুলোতে আমি যাচ্ছি। দ্রুত সময়ের মধ্যে উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

শর্টলিংকঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।